নোয়াখালিতে ঘরে একা পেয়ে বিধবাকে ধর্ষণ করলো ফেরিওয়ালা

আওয়ার বাংলাদেশ ২৪
প্রকাশিত অক্টোবর ৩০, ২০২০
নোয়াখালিতে ঘরে একা পেয়ে বিধবাকে ধর্ষণ করলো ফেরিওয়ালা

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর হাতিয়ার চরকিং ইউনিয়নের দক্ষিণ গামছাখালী গ্রামে ঘরে ঢুকে এক বিধবা নারীকে (৩৯) ধর্ষণের অভিযোগে এক ফেরিওয়ালাকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

আটক ফেরিওয়ালা শ্রীবাস দেবনাথ (৪০) উপজেলার নলচিরা ইউনিয়নের ৯নম্বর ওয়ার্ডের ফজরম মাঝি এলাকার সুনীল দেবনাথের ছেলে। বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার চরকিং ইউনিয়নের ৯নম্বর ওয়ার্ডের গামছাখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় নির্যাতিতা নারী বাদী হয়ে ওই রাতেই অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।

হাতিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কাঞ্চন কান্তি দাস ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার দক্ষিণ গামছাখালী গ্রাম থেকে পুলিশ তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

তিনি আরো জানান, আটক ফেরিওয়ালা সাইকেলে ফেরি করে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে বাদাম, মোল্লা বিক্রি করতেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে সে ফেরি করতে যায় দক্ষিণ গামছাখালী গ্রামে। ওই সময় বিধবার মা ওষুধ কিনতে পাশের বাজারে যান। ছেলেও বাইরে ছিল। এ সময় ফেরিওয়ালা বিধবা নারীকে ঘরে একা পেয়ে ধর্ষণ করে। এক পর্যায়ে তার চিৎকারে বাড়ির লোকজন এসে ধর্ষককে আটক করে পুলিশে দেয়।

Sharing is caring!