ইভটিজিং এর প্রতিবাদে নোয়াখালীতে শিক্ষকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত অক্টোবর ৩০, ২০১৯
ইভটিজিং এর প্রতিবাদে নোয়াখালীতে শিক্ষকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

স্টাফ রিপোর্ট

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরফকিরা উচ্চ বিদ্যালয়ের খণ্ডকালীন শিক্ষক জহির উদ্দিন (২৭) কর্তৃক ছাত্রীদেরকে ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার দুপুরে ওই বিদ্যালয়ের সামনে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।

জানা যায়, চরফকিরা উচ্চ বিদ্যালয়ের খন্ডকালীন শিক্ষক জহির উদ্দিন স্কুলের একাধিক ছাত্রীকে বিদ্যালয়ে, মুঠোফোনে এবং বিভিন্নভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছে। এই বিষয়ে বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির এক ছাত্রীর অভিভাবক শাহাদাত হোসেন গত ২৩ অক্টোবর বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ করে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও পরিচালনা পর্ষদ ঘটনার এক মাস পরও অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা না নেয়ায় অভিযুক্ত শিক্ষকের বিচারের দাবিতে মঙ্গলবার দুপুরে বিদ্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করে শিক্ষার্থীরা।
এবিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষক জহির উদ্দিনের মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

চরফকিরা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কামরুজ্জামান মুঠোফোনে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন করার বিষয়ে নিশ্চিত করে বলেন, এ বিষয়ে অত্র বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের নিয়ে একটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, বিদ্যালয়ের খণ্ডকালীন শিক্ষক জহির উদ্দিনের বিরুদ্ধে শাহাদাত হোসেন নামে এক অভিভাবক লিখিত অভিযোগ করেন। ওই লিখিত অভিযোগটি বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ও চরফকিরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জামাল উদ্দিন লিটনকে জানালে তিনি অভিযোগটি তার কাছে রেখে দিয়ে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান।

চরফকিরা উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ও চরফকিরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জামাল উদ্দিন লিটনের কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের সম্মেলন নিয়ে ব্যস্ত থাকায় আমি এ বিষয়ে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারি নাই।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সল আহমেদ ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শাহ কামাল পারভেজ জানান, এ বিষয়ে প্রধান শিক্ষক ও পরিচলনা পরিষদের সভাপতি আমাদেরকে অবহিত না করার কারণে তাদেরকে শোকজ করা হবে। এছাড়া ওই অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Sharing is caring!