August 14, 2020, 7:45 am

বানভাসিদের পাশে দাঁড়ালো টাঙ্গাইল জেলা ছাত্র জমিয়ত

মিজানুর রহমান
টাংগাইল জেলা প্রতিনিধি

টানা বর্ষণ ও বন্যায় যমুনার পাড় ভেঙে টাঙ্গাইল জেলার কালিহাতি থানার নদী তীরবর্তী ‘বেলটিয়া’ গ্রামের অর্ধশতাধিক বাড়ি একদম নদীগর্ভে বিলীন। মানুষগুলো হয়ে পড়েছে সম্পূর্ণ সহায় সম্বলহীন।
যাদের কষ্টের কোন সীমা নেই। সেই অর্ধশতাধিক পরিবারে গতকাল (৩০ জুলাই,বৃহস্পতিবার) আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে প্রায় অর্ধলক্ষাধীক টাকার ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেছে ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশ, টাঙ্গাইল জেলা শাখা ।

গতকাল বিকেল ৫ টার দিকে উক্ত এলাকা পরিদর্শন করে তারা। এ সময় খুঁজে খুঁজে অধিক ক্ষতিগ্রস্ত
এমন অর্ধশত পরিবারের মাঝে এ ত্রাণ সামগ্রি প্রদান করা হয়। মানুষগুলোর সবকিছু হারানোর মর্মান্তিক ট্রাজেডি শুনে অনেক দায়ীত্বশীলের চক্ষু তখন অশ্রুস্নাত হতে দেখা যায়!

স্থানীয় সূত্রে জানা যায় যে, চলতি বছরে সরকারি- ভাবে ঐ এলাকাতে শক্তিশালী বাঁধ নির্মানের বিল
পাশ হলেও সেই বাঁধ আর হয়নি। যার ফলশ্রুতিতে
গত মাসখানিক আগে একরাতেই চোখের পলকে
৩০ টির মতো বাড়ি সম্পূর্ণ নদীর স্রোতে ভেসে যায়।
তার পরেরদিন ভেসে যায় আরও ২০ টির মতো বাড়ি। স্বপ্নের সাজানো সংসারগুলো নিমিষেই শেষ! পরে তাদেরকে সরকারিভাবে ত্রান হিসেবে যা দেয়া হয়েছে, প্রয়োজনের তুলনায় তা একেবারেই অপ্রতুল! ছাত্র জমিয়ত নেতৃবন্দ বলেন- ‘সকলের উচিত দলমত নির্বিশেষে এদের পাশে দাঁড়ানো’ ।

ত্রাণ বিতরনী কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন জেলা ছাত্র জমিয়তের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও টাঙ্গাইল পৌর সভাপতি হাফেজ সাদীমুল্লাহ সাদ্দাম, জেলার অর্থ সম্পাদক হাফেজ আব্দুল লতিফ, প্রচার সম্পাদক আতাউর রহমান, সহপ্রচার সম্পাদক মিনহাজ খান, প্রশিক্ষণ সম্পাদক রহমতুল্লাহ, স্কুল কলেজ বিষয়ক সম্পাদক আহমদ হুসাইন আকাশ, কার্যনির্বাহী সদস্য মাসউদুর রহমান, কামরুজ্জামান, জাহাঙ্গীর আলম, সাদিকুল ইসলাম প্রমূখ ।

Leave a Reply

     এই বিভাগের আরও খবর

ফেসবুক পেইজ