দেশে সুষ্ঠু বিচার না থাকায় ধর্ষকদের আস্ফালন বেড়ে গেছে: ইশা ছাত্র আন্দোলন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা

আওয়ার বাংলাদেশ ২৪
প্রকাশিত অক্টোবর ২, ২০২০
দেশে সুষ্ঠু বিচার না থাকায় ধর্ষকদের আস্ফালন বেড়ে গেছে: ইশা ছাত্র আন্দোলন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা

আলমগীর ইসলামাবাদী 

বিশেষ প্রতিনিধি

আজ ২অক্টোবর জুমাবার সকাল ৯ ঘটিকায় চন্দনাইশ কলেজ গেইটে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা শাখার উদ্যোগে শাখা সভাপতি মুহা. শরিফুল ইসলাম আজীজী-এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মারুফুল ইসলাম-এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ‘বিক্ষোভ মিছিলে’ প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইশা ছাত্র আন্দোলন কেন্দ্রীয় শুরা সদস্য মুহাম্মাদ নুর আহমদ তালহা বলেন আজ দেশের কোথাও সুষ্ঠু বিচার নেই, দেশ মানবতা আজ চরম সংকটময় মুহূর্ত পার করছে, সরকারের লালিত পালিত কর্মী বাহিনীর অত্যচারে দেশের সাধারন মানুষ আজ অতিষ্ট, এক চরম দুরদিনে অতিবাহিত হচ্ছে মানুষের দিনকাল। ব্যবসায়ীদের মালের ভয়, নারীদের ইজ্জতের ভয়, বিরোধী দলের জেল জুলুমের ভয়, সর্বত্রই ত্রাসের রাজত্ব চলছে। করোনা পরিস্থিতিতেও আমরা দেখেছি সর্বত্র অমানবিক আচরণ। জালিমদের এই জুলুমের জিঞ্জির ভেঙে দেশ মানবতাকে মুক্ত করতে দেশের সকল শ্রেণির জনসাধারণকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সংগ্রাম করতে হবে।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, বাংলাদেশ আজ ধর্ষণের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছে। সিলেট এমসি কলেজের ক্যাম্পাসে ঘটিত ধর্ষণ তার স্পষ্ট উদাহরণ। বিচারহীনতার কারণেই আজ ধর্ষণ এ পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে। বিচারহীনতা এভাবে চলতে থাকলে ধর্ষণের পরিমাণ প্রতিনিয়ত বৃদ্ধি পেতে থাকবে। তাই সরকারের কাছে আমরা দাবি জানাই, ধর্ষণের শাস্তি দ্রুত বিচার আইনের মাধ্যমে কার্যকর করতে হবে।

উক্ত সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চট্টগ্রাম পূর্বের আহবায়ক মৌলানা নুরুল আলম তালুকদার, সচিব হুমায়ুন কবির, ইশা ছাত্র আন্দোলন এর কেন্দ্রীয় সূরা সদস্য মুহাম্মাদ মিশকাতুল ইসলাম, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সাবেক সহ সভাপতি মুহাম্মদ আসহাব উদ্দীন, আরো উপস্থিত ছিলেন ইশা ছাত্র আন্দোলন চ.দ শাখার সহ-সভাপতি কাজী আবরার হানিফ, সাধারণ সম্পাদক মারুফুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক জুনাইদুল হক, প্রশিক্ষণ সম্পাদক আরিফুল ইসলাম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আতিকুর রহমান , দফতর সম্পাদক মুহাম্মদ আব্বাস, আলিয়া মাদরাসা বিষয়ক সম্পাদক মিফতাহুল ইসলাম, কওমি মাদ্রাসা বি. সম্পাদক মুহাম্মদ এরশাদ, কলেজ সম্পাদক মুনজুরুল ইসলাম, স্কুল বিষয়ক সম্পাদক আরফাত হুসাইন, ছাত্র কল্যাণ সম্পাদক ওমর ফারুক , সাহিত্য ও সাংস্কৃতি আইমন হুসাইন, নেজাম আবু বকর প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

Sharing is caring!