সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা শাহ আলম বালু চুরির দায়ে গ্রেফতার

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত মে ১২, ২০২০
সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা শাহ আলম বালু চুরির দায়ে গ্রেফতার

সিলেট প্রতিনিধি:
সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা শাহ আলমকে আটক করেছে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ।
আটককৃত শাহ আলম উপজেলার পশ্চিম ইসলামপুর ইউনিয়নের নয়াগাঙেরপাড় গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য ময়না মিয়ার ছেলে। গ্রেফতারের পর আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

পুলিশ জানায়, রোববার রাত ২ টার সময় উপজেলার ধলাই ব্রিজের নিচ থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের সময় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এসময় বালু তোলার কাজে ব্যবহৃত একটি ট্রাক ও একটি ফেলুডার মেশিন জব্দ করা হয়। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে শাহ আলমসহ তিনজনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করে।

এছাড়াও একাধিক মামলা রয়েছে তার বিরুদ্ধে। ২০১৪ সালের ৩ অক্টোবর উপজেলার দয়ার বাজারে সংঘঠিত একটি ডাকাতির মামলার অন্যতম আসামি হিসেবেও শাহ আলমকে গ্রেপ্তার করা হয়। ডাকাতির মামলায় দীর্ঘদিন কারাগারে ছিলেন তিনি। সে সময় উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক পদ থেকে শাহ আলমকে বহিস্কার করা হয়।

এছাড়াও সে কোম্পানীগঞ্জ থানার একাধিক ডাকাতি মামলার আসামি বলে জানিয়েছে পুলিশ। ২০১০ সালে অপহরণ ও হত্যা এবং লাশ গুম করার অভিযোগে একটি মামলাও রয়েছে তার বিরুদ্ধে । জেল থেকে বের হয়ে বেশ কয়েক বছর থেকে উপজেলায় ডাকাতি, চুরিসঅহ নানা অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছিলেন তিনি।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত) রজিউল্লাহ খান বলেন, ‘বালু চুরির সময় শাহ আলমকে পুলিশ হাতেনাতে গ্রেপ্তার করেছে। পরে তাকে প্রধান আসামি করে আরও দুইজনের নাম উল্লেখ করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়’। অন্য আসামিদের ধরতে পুলিশি অভিযান অব্যাহত আছে বলেও জানান তিনি।

Sharing is caring!