মুজিববর্ষ-১০০ নামে নতুন ক্যালেন্ডার

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত মার্চ ১৭, ২০২০
মুজিববর্ষ-১০০ নামে নতুন ক্যালেন্ডার

গতকাল সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে নতুন এই ক্যালেন্ডারের মোড়ক উন্মোচন করেন শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব কেএম আলী আজম।

এসময় শ্রম সচিব বলেন, এ ক্যালেন্ডার উদ্বোধন জাতির জন্য মাইলফলক। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু আমাদের ধ্রুব তারার মতো। তাকে স্মরণ করেই জাতি দেশকে এগিয়ে নেবে। নতুন এই ক্যালেন্ডারে বার মাসের নাম দেয়া হয়েছে স্বাধীনতা, শপথ, বেতারযুদ্ধ, যুদ্ধ, শোক, কৌশলযুদ্ধ, আকাশযুদ্ধ, জেল হত্যা, বিজয়, ফিরে আসা, নবযাত্রা ও ভাষা।

সচিব বলেন, করোনা ভাইরাসকে সামনে রেখে আমরা বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি। ইতোমধ্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য বিভিন্ন সেক্টরের মালিক সংগঠনের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকদের অনুরোধ করেছি। তার মধ্যে কর্মীদের কারখানায় প্রবেশের আগেই হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়ে হাত ধুয়ে প্রবেশ করানো, শ্রমিকদের মাস্ক পরে প্রবেশ করানো, থার্মাল স্ক্যানার দিয়ে তাপমাত্রা পরীক্ষা করা, তাপমাত্রা ১০০ এর বেশি হলে তাদের স্বতন্ত্রভাবে আলাদা করে ডাক্তারের পরামর্শ নেয়া, যদি করোনা পজিটিভ হয় সেক্ষেত্রে যেন হাপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

করোনাভাইরাস রোধে কোনো মিল ফ্যাক্টরি কল কারখানা বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়নি জানিয়ে তিনি বলেন, একই সঙ্গে সাপ্লাই চেইন ও কার্যক্রম ঠিক রেখে যতদূর সম্ভব করোনা ভাইরাস প্রতিরোধের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। যেসব শ্রমিকদের আত্মীয় সম্প্রতি বিদেশ থেকে এসেছে তাদের ডাটা নিয়ে যেন ছুটি দেয়া হয়। প্রতি সপ্তাহে অন্তত একবার সকল শ্রমিকদের নিয়ে করোনা ভাইরাস বিষয়ে সচেতনতামূলক বক্তব্য দেয়ার নির্দেশ দিয়েছি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. মোল্লা জালাল উদ্দিন, ড. রেজাউল হক, কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদফতরের মহাপরিদর্শক শিবনাথ রায়, জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি ফজলুল হক মন্টু এবং কেন্দ্রীয় তহবিলের মহাপরিচালক এবং এ ক্যালেন্ডারের রূপকার ড. আনিসুল আওয়ালসহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

Sharing is caring!