বাবা হারানোর অনুভূতি

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত জুন ২০, ২০২১
বাবা হারানোর অনুভূতি
  • মাজাহারুল ইসলাম সাইফ

১৮ বছরের জীবনে অনেকবার হাতে কলম তুলে নিয়েছি,তবে সেই মানুষটাকে নিয়ে কখনো লিখা হয়নি যেই মানুষটা আমার জন্য নিজেকে ভুলে গিয়েছিলো। ১৮ বছরে পদার্পণের সাথে সাথে জীবনে অনেক রচনা করেছি, তবে রচিত হয়নি কোন গল্প আমার জীবনের সন্ধ্যাতারাকে নিয়ে।
অথচ আমার প্রতিটা গল্পের নির্মাতা সেই মানুষটাই।নিজের সমস্ত সুখের কথা ভাবা ছেড়ে দিয়ে দুঃখ আঁকড়ে বেঁচে ছিলেন আমার জন্য। ভূমিষ্ট হওয়ার পর থেকে কখনো আমাকে ছুঁতে পারেনি কালো রোদ। বরাবর ছায়া হয়ে ছিলেন মাথার উপর। জীবন নদীতে চলতে গিয়ে কখনো ছাড়েনি আমার হাত। সকল প্রতিকূলতার মাঝেও আগলে রেখেছেন আমায়। ঠিক যেভাবে ঝিনুক আগলে রাখে মুক্তোকে। প্রচন্ড শীতে পুরো পৃথিবী যখন ঘুমন্ত তখন তিনি ব্যস্ত আমার মুখে একটু হাসি ফুটানোর জন্য। ভালবাসার চাদরে সর্বদা আমায় আগলে রেখেছেন অতন্দ্র প্রহরী হয়ে। যখনপ্রচন্ড ঝড়ে ভেঙে দিয়েছিলো আমার তরী, দিশেহারা হয়ে ঝাপিয়ে পড়েছিলাম প্রবল স্রোতে, সেদিনও সেই মানুষটাই হাত ধরে টেনে তুলেছিলো তীরে। পথ দেখিয়েছিলো কোন নতুন দিগন্তের। নিজের হাতে গড়ে দিয়ে গেলেন আমার চলার পথ।তিনি আমার গর্ব,তিনি আমার অনুপ্রেরণা। সারাজীবন তোমার ভালোবাসার ছায়ায় কাটাতে চাই প্রিয় বাবা।

বাবাদের করা অপ্রাপ্তি ভালোবাসার জয় হোক।
জগতের সব কিছু দিয়েও বিনিময় দেওয়া অসম্ভব। শুধুমাত্র একটি দোয়া ছাড়া। আসুন সকলে বলি-রাব্বির হাম হুমা কামা রাব্বাইয়ানী সগীরা।

Sharing is caring!