নোয়াখালীতে জমইয়্যাতুল ক্বাওমিয়্যাহ উদ্যোগে শিক্ষক সম্মেলন অনুষ্ঠিত।

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত অক্টোবর ২১, ২০১৯
নোয়াখালীতে জমইয়্যাতুল ক্বাওমিয়্যাহ উদ্যোগে শিক্ষক সম্মেলন অনুষ্ঠিত।

নুরুল হক

নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি:

আজ ২১ অক্টোবর রোজ সোমবার জমইয়্যাতুল ক্বাওমিয়্যাহ নোয়াখালী -লক্ষীপুর -বেগমগঞ্জ থানার উদ্যোগে এমদাদুল উলূম কালিকাপুর মাদ্রাসায় এক বিশাল শিক্ষা সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বেফাকুল মাদারিসিল ক্বওমিয়্যাহ বাংলাদেশের সম্মানীত প্রশিক্ষক আল্লামা শিব্বির আহমদ সাহেব, ফেনী জামেয়া ইসলামীয়া রশীদিয়ার সম্মানীত মোহতামীম আল্লামা মুফতী শহীদুল্লাহ সাহেব, আল জামেয়া ইসলামীয়া আল আমীন মাদ্রাসার আম্মানীত পরিচালক মাওলান আযীযুল্লাহ নওয়াব, নাজিরপুর মাদ্রাসার সম্মানিত মোহতামীম আল্লামা হা:আ:রহমান সাহেব। আরও উপস্থিত ছিলেন জমইয়্যাতুল ইসলামীয়া নোয়াখালী -লক্ষীপুরের দায়ীত্বশীলবৃন্দ ও বেগমগঞ্জ থানার ভিবিন্ন মাদ্রাসার পরিচালকবৃন্দ। প্রধান অতিথির আলোচনায় আল্লামা শহীদুল্যাহ সাহেব বলেন, যে আজকে আমদের ছাত্ররা যোগ্য আলেম হচ্ছেনা,আল্লাহভীরু হচ্ছেনা, মোত্তাকী হচ্ছেনা, তার একটাই কারণ আমরা আমাদের ছাত্রদের সাথে নেছবত কায়েম করতে পারি নাই। আমরা আমাদের ছাত্রদের সাথে পিত্যসূলভ আচরণ করতে হবে।তাহলেই আমাদের ছেলেরা যোগ্য আলেম হবেন। বিশেষ অতিথির আলোচনায়, চৌমুহনী কাছারী বাড়ী মসজিদের সম্মানিত খতীব আল্লামা কবীর আহমদ সাহেব। বলেন জমইয়্যাত শুধু তা’লীম তারবিয়্যাত তাযকিয়ার জন্য নয়, বরং জিহাদ ফি সাবীলিল্লাহর জন্যও। তিনি আরও বলেন আমরা ওলামায়ে কেরাম এক হয়ে কাজ করতে হবে, তিনি ভোলার ঘটনা উল্লেখ করে বলেন, আজকে নবীর অবমাননায় বিক্ষোভ মিছিল পর্যন্ত করতে দেয়া হয়না। তিনি আরও বলেন যে ভোলার ঘটনার প্রতিবাদে মাঠে একদল আন্দোলন করে যাচ্ছে,তা ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ। তিনি সবাইকে এক্যবদ্ব হয়ে কাজ করার আহবান জানান। বিকেল ৪ :২০ মি: আল্লামা শিব্বির আহমদ সাহেবের দোয়ার মাধ্যমে উক্ত শিক্ষক সম্মেলন শেষ হয়।

Sharing is caring!