নিজেদের রেশন অসহায় মানুষদের দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলো পুলিশ -এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত এপ্রিল ১৯, ২০২০
নিজেদের রেশন অসহায় মানুষদের দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলো পুলিশ -এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল

প্রদীপ রায়, দিনাজপুর প্রতিনিধি:

দিনাজপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মনোরঞ্জন শীল গোপাল বলেছেন, জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরে পুলিশের চলমান একটি স্লোগান ‘পুলিশই জনতা, জনতাই পুলিশ’। নিজেদের এক মাসের রেশন (বাড়ির খাওয়ার) সাড়ে ৪’শ পরিবারের মধ্যে বিতরণ করে আবারও প্রমাণ করে দিল যে সত্যিকার অর্থেই পুলিশ জনগণের বন্ধু। এ দৃষ্টান্ত নিঃসন্দেহে পুলিশের ভাবমূর্তিকে অনেক বেশি উজ্জ্বল করলো। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষার ক্ষেত্রে যথাযথ দায়িত্ব পালনের পরেও সামাজিক ক্ষেত্রে যে দায়িত্ব পুলিশ পালন করল, আমার বিশ্বাস এটি নিঃসন্দেহে সাধারণ মানুষের কাছে অত্যন্ত স্মরণীয় হয়ে থাকবে।
১৯ এপ্রিল ২০২০ রোববার সকালে দিনাজপুরের বীরগঞ্জ থানার উদ্যোগে করোনা ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে হঠাৎ কর্মহীন মানুষদের খাদ্য সামগ্রী বিতরণকালে এমপি গোপাল এসব কথা বলেন।
বীরগঞ্জর থানার কর্মকর্তা জানান, দিনাজপুর পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বিপিএম.পিপিএম (বার) এর পরামর্শক্রমে থানার ৬০ জন পুলিশ সদস্যের গত মার্চ মাসের রেশন থেকে এই উপজেলার হঠাৎ কর্মহীন হয়ে পড়া সাড়ে ৪ শ পরিবারের খাদ্য সহায়তা দেয়া হয়। এতে প্রত্যেক পরিবার পাবে ৫ কেজি চাল, ৩ কেজি আলু ১/২ কেজি লবন। থানায় সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে সুশৃঙ্খল ভাবে এসব খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়। তিনি বলেন, আজকে আমরা যাদের সহায়তা করলাম তারা প্রকৃতপক্ষেই নিত্যদিন উপর্জন করে জীবন চালানোদের মতো মানুষ। করোনা ভাইরাসের সংক্রমনে মানব জীবন যখন থমকে যাচ্ছে, তখন ওদের জীবনও অচল হয়ে পড়েছে। এই মানুষগুলোর পাশেও আমাদের দাড়াঁতে হবে।
এসময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বীরগঞ্জ সার্কেল) ওয়ারেস আহমেদ, বীরগঞ্জ থানার ওসি মো. আব্দুল মতিন প্রধান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. নুর ইসলাম নুর, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শামীম ফিরোজ আলম প্রমুখ।
এর আগে বীরগঞ্জ উপজেলা পষিদের অর্থায়নে উপজেলা কৃষি অফিস চত্বরে নিরাপদ সবজি উৎপাদনে সেক্স ফেরোমন ট্রাপ ৩ শ ৫০ জন কৃষকের মাঝে লিওর বিতরণ করেণ মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি।

Sharing is caring!