ইসলাম ছাড়া সাম্য ও মানবিক মর্যাদা প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয়; ফেনীতে শায়খে চরমোনাই

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত ডিসেম্বর ৭, ২০১৯
ইসলাম ছাড়া সাম্য ও মানবিক মর্যাদা প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয়; ফেনীতে শায়খে চরমোনাই

ঐতিহাসিক চরমোনাই মাহফিলের নমুনায় বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি ফেনী জেলার উদ্যোগে আয়োজিত ফেনীর মহিপাল সরকারি কলেজ মাঠে তিনদিন ব্যাপী ওয়াজ মাহফিলের দ্বিতীয় দিন প্রধান অতিথির আলোচনায় তিনি উপর্যুক্ত কথা বলেন। তিনি তাঁর আলোচনায় বলেন- ‘বর্তমান বিশ্বের কোথাও ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠিত নেই। সব জায়গায় সবলরা দুর্বলদের ওপর অত্যাচার করে। তার নমুনা আমরা দেখতে পাই আমাদের দেশসহ সারা বিশ্বের বিচারব্যবস্থায়। বিশেষ করে সম্প্রতি আমাদের পাশ্ববর্তী দেশ ভারতে বাবরি মসজিদের মামলার রায় হয়েছে। সেখানে ন্যায়বিচার উপেক্ষিত হয়েছে। শুধুমাত্র হিন্দুদের অন্ধবিশ্বাসের ওপর ভিত্তি করে এই রায় প্রদান করা হয়েছে। যা কোন বিশ্বস্থ সূত্র দ্বারা প্রমাণিত নয়। অথচ সেখানে বিগত ৫০০ বছর যাবত মসজিদ দৃশ্যমান ছিল। এভাবে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ আজ মানবতা ভূলণ্ঠিত। সাম্য ও মানবিক মর্যাদা কোথাও নেই। একমাত্র ইসলামই ন্যায়বিচারের শিক্ষা দেয়। ইসলাম প্রতিষ্ঠা হলেই সমাজে ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হবে। গৌরবোজ্জ্বল ইসলামী খিলাফত তারই প্রমাণ করে।

মাহফিলের দ্বিতীয় দিন আজ মাগরিবের পর থেকেই লোকে লোকারণ্য হয়ে উঠেছে মাহফিল প্রাঙ্গন। শ্রোতাদের উপচে পড়া ভীড় সামাল দিতে হিমসিম খেতে হয়েছে মাহফিল কর্তৃপক্ষকে। আজ নায়েবে আমিরুল মুজাহিদীন মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ ফয়জুল করীম শায়খে চরমোনাইয়ের জুমার পূর্ব বয়ান ও জুমার ইমামতির মাধ্যমে মাহফিলের কার্যক্রম শুরু হয়েছে। ফেনীর প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে মানুষ পঙ্গপালের মতো ছুটে এসেছে মহিপাল সরকারী কলেজ মাঠে। চরমোনাইয়ের নমুনায় তিনদিন ব্যাপী মাহফিল শুধু বয়ানের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয়। সকাল থেকে জুমার আগ পর্যন্ত বিশুদ্ধ কুরআন শিক্ষা, নামাজ শিক্ষাসহ প্রয়োজনীয় মাসআলা-মাসায়েল শিক্ষা প্রদান করা হয়।

আজ দ্বিতীয় দিন অন্যান্য উলামায়ে কিরামদের মাঝে বয়ান করেন, খুলনার পীর সাহেব মাওলানা আবদুল আউয়াল, তারুণ্যের অহঙ্কার, নন্দিত মুফাসসির মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহ (কুয়াকাটা), মাওলানা আবু সাঈদ, মুহাদ্দিস ওলামাবাজার মাদরাসা, মুফতি শহিদুল্লাহ, মুহতামিম, জামিয়া রশিদিয়া, মুফতি ইউসুফ কাসেমী, মুহতামিম, দাগনভূঞা আশরাফুল উলুম মাদরাসা, মাওলানা নুরুল্লাহ, মুহতামিম, নুরপুর মাদরাসা, মাওলানা মীর হোসাইন, ইমাম, ফেনী কোর্ট মসজিদ, মাওলানা আবদুর রহমান জামী, মাওলানা খলিলুর রহমান প্রমুখ। আগামীকাল তৃতীয় দিন প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন, আমিরুল মুজাহিদিন, মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন দেশবরেণ্য অনেক উলামায়ে কেরাম।

বার্তা প্রেরক

মুফতি আবদুর রহমান গিলমান

আহ্বায়ক মিডিয়া বিষয়ক উপকমিটি

Sharing is caring!