আহলে হাদিসের মিথ্যা মামলায় আটককৃতদের মুক্তির দাবিতে ভোলায় বিক্ষোভ মিছিল

আওয়ার বাংলাদেশ
প্রকাশিত অক্টোবর ২, ২০১৯
আহলে হাদিসের মিথ্যা মামলায় আটককৃতদের মুক্তির দাবিতে ভোলায় বিক্ষোভ মিছিল
ইসমাইল
ভোলা জেলা প্রতিনিধিঃ:
বুধবার (২রা অক্টোবর ‘১৯ ইং) ঈমান আকিদা সংরক্ষণ কমিটি ভোলা জেলা শাখার উদ্যোগে সকাল সাড়ে ১১ টায় ভোলায় তথা কথিত আহলে হাদিসের নামে ভন্ডামি ও সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারি ভন্ড কামরুল ইসলাম বাবুলের দ্বায়ের করা মিথ্যা মামলায় ১৯ জন মুসল্লির জামিন নামঞ্জুরের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও সড়ক অবরোধ করেছে ভোলার ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। মিথ্যা মামলায় আটক হওয়া মুসল্লিদের মুক্তির দাবিতে ভোলা সদর রোডে বিক্ষোভ মিছিল করে ঈমান আক্বিদ্বা সংরক্ষন কমিটি ভোলা জেলা শাখা। মিছিলটি কালীনাথ বাজার থেকে সদর রোড হয়ে ভোলা জজ আদালতের সামনে গেলে পুলিশ তাদের কে সামনে যাতে অগ্রসর না হতে পারে সেজন্য বাঁধা প্রদান করে। এ সময় গ্রেফতারকৃতদের বক্তব্য রাখেন ঈমান আক্বিদ্বা সংরক্ষন কমিটি ভোলা জেলা সভাপতি মাও: বশির উদ্দিন, সাধারন সম্পাদক মাও: তাজউদ্দিন ফারুকি, যুগ্ম সম্পাদক মাও: মিজানুর রহমান, মাও: ইয়াকুব আলি ,সমাজ কল্যান সম্পাদক মাও: তরিকুল ইসলাম, সদস্য মাও: গোলাম মোর্শেদ, মাও: সামসুদ্দিন, মাও: ইব্রাহিম খলিল, মাওঃ ইউসুফ আদনান, মুফতি আব্দুল মোমিন সহ প্রমুখগণ। এ সময় বক্তারা বলেন আহলে হাদিস নামধারী বহুরুপি কামরুল ইসলাম বাবুল ধর্মের নামে সমাজে বিভিন্ন ভাবে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে র্ধমপ্রাণ মুসল্লিদের ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাত হানছে। কামরুলের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য ইতিপুর্বে বিক্ষোভ মিছিল, মানববন্ধন, জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার বরাবর স্মারকলীপি প্রদান করা হয়েছিল। কিন্তু প্রশাসন তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়নি। অথচ ভন্ড কামরুলের দ্বায়ের করা মিথ্যা মামলায় ১৯ জন নিরীহ মুসল্লির জামিন নামঞ্জুর করে কারাগরে পাঠানো হয়েছে। এসময় বক্তারা শান্তিপূর্ণ দ্বীপ জেলা ভোলার শান্তি রক্ষার্থে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারি ভন্ড কামরুলকে গ্রেফতার এবং মুসল্লিদের মুক্তির দাবি জানান । আগামীকাল কের মধ্যে গ্রেফতারকৃতদের মুক্তি না দিলে কঠোর আন্দোলনের মাধ্যমে ভোলা অচল করে দেওয়ার হুশিঁয়ারি প্রদান করেন তারা। এদিকে রাস্তা অবোরোধের ফলে যানযট ও জনসাধারনের ভোগান্তি সৃষ্টি হয়। জনসাধারনের ভোগান্তির কথা বিবেচনা করে ১টার দিকে অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়।

Sharing is caring!